২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ রাত ৮:১৫
ব্রেকিং নিউজঃ

তৃণমূল নামক বিপদকে পরাস্ত করুন, নাহলে রাজ্য বাঁচবে না: বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইমঃ মঙ্গলবার, মে ৭, ২০১৯,
  • 81 সংবাদটি পঠিক হয়েছে

নিউজ ডেস্ক, কলকাতা: ‘‘তৃণমূল নামক বিপদকে পরাস্ত করুন, নাহলে রাজ্য বাঁচবে না’’ – নিজের বক্তব্যে জানিয়েছেন রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য৷ লোকসভা নির্বাচনের পরিপ্রেক্ষিতে এই প্রথম মুখ মুললেন বুদ্ধদেব৷ গণশক্তি পত্রিকায় এখনও পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গের শেষ বাম মুখ্যমন্ত্রীর সাক্ষাৎকার ছাপা হয়েছে৷ ওই সাক্ষাৎকারে তিনি এও বলেছেন, ‘‘বিজেপি’কে জায়গা করে দিয়ে সাম্প্রদায়িকতার এক বিপজ্জনক পরিবেশ তৈরি করেছে তৃণমূল। আমাদের দরকার, এই রাজনীতিকে মূল থেকে উৎপাটিত করা।’’

প্রশ্ন ছিল, এরাজ্যে নির্বাচনী জনসভায় প্রধানমন্ত্রী ও মুখ্যমন্ত্রীর কথায় সাম্প্রদায়িক মেরুকরণের স্পষ্ট ইঙ্গিত। রাজ্যজুড়ে প্রকাশ্যেই সাম্প্রদায়িক রাজনীতির তীব্র প্রতিযোগিতা চলছে। রাজ্য রাজনীতির এই নতুন অভিমুখ সম্পর্কে তিনি কী ভাবছেন৷

ফাইল ছবি

প্রতিযোগিতামূলক সাম্প্রদায়িকতার বিষয়টি মেনে নিয়ে তৃণমূল এবং বিজেপি সম্পর্কে বুদ্ধদেববাবু বলেছেন, ‘‘ ওঁরা দুজনেই হিসাব করে চাল দিচ্ছেন। লক্ষ্য সাম্প্রদায়িকতার আশু উসকানি, জনগণের স্বার্থের বিনিময়ে যা থেকে হাতেনাতে কিছু ফল পাওয়া যায়। বিজেপি-তৃণমূলের এই কাণ্ডকারখানার ফলে এরাজ্যে যেভাবে সাম্প্রদায়িক মেরুকরণ ঘটেছে, তা অতীতের সব ইতিহাসকে ছাপিয়ে গেছে। এরাজ্যে বিজেপি’কে জায়গা করে দেওয়া, তাদের সঙ্গে আপসে লড়াই করে সাম্প্রদায়িকতার এক বিপজ্জনক পরিবেশ তৈরি করেছে তৃণমূল। আমাদের দরকার, এই রাজনীতিকে মূল থেকে উৎপাটিত করা এবং হিন্দু-মুসলমানের ঐক্য বজায় রাখা, যা এরাজ্য পারে।’’

তৃমমূল কংগ্রেস পশ্চিমবঙ্গে যে অরাজক পরিস্থিতি তৈরি করেছে তার ফয়দা লুটছে বিজেপি৷ প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মনে করেছেন, ‘‘হ্যাঁ, এই বিপদ আসতে পারে। কিছু জায়গায় এসেছেও। আমাদেরই দায়িত্ব এই সর্বনাশা দিক থেকে মানুষকে ফিরিয়ে আনা। তৃণমূলের গরম তেলের কড়াই থেকে বিজেপি’র জ্বলন্ত উনুনে ঝাঁপ দেওয়া কি বুদ্ধিমানের কাজ?’’

বুদ্ধদেববাবু মনে করথেন, ‘‘বামফ্রন্ট সরকারের সময়কালের তুলনায় তৃণমূলের সময়ে এরাজ্যে জীবনযাত্রা ও জীবনসংস্কৃতির যে অধঃপতন ঘটেছে, তা সবাই অনুধাবন করছেন। এই পথেই এরাজ্যে বিজেপি-র অনুপ্রবেশ। তাই তৃণমূল নামক বিপদকে এরাজ্যে পরাস্ত করতেই হবে। আটকাতে হবে বিজেপি’কে। ধর্মীয় ফ্যাসিবাদকে নির্মূল করতে হবে। গোটা দেশে ধান্দাবাজদের চৌকিদারকে হটাতেই হবে। এটাই মানুষের সামনে দায়িত্ব।’’

বামপন্থীদের লড়াই-আন্দোলনকে পিছনে ফেলে দেওয়ার চেষ্টা চলছে। একটা ধারণা তৈরি করার চেষ্টা হচ্ছে যে লড়াইটা বিজেপি আর তৃণমূলের। এই জটিল পরিস্থিতিতে মানুষের সামনে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী কী বলবেন? বুদ্ধদেববাবুর জবাব, ‘‘ এরাজ্যের মানুষ যারা বামফ্রন্ট সরকারকে দেখেছেন, এখন তৃণমূল সরকারকেও দেখছেন, তাঁরা এই দুই সরকারের কর্মপন্থা আর ফলাফলও দেখেছেন। তাঁদের কাছে আমার আবেদন, আপনারা তুলনামূলক বিচার করুন। বিশেষ করে তরুণ সমাজকে আমি বলবো, সংশয়ের গভীরে যান, নিজেরাই এই দুই সরকারের পার্থক্যের মূল্যায়ন করুন। আমি বিশ্বাস করি আপনাদের মূল্যায়ন সঠিক হবে এবং আপনারা অচিরেই, অনতিবিলম্বে তৃণমূল নামক বিপদকে এরাজ্যে পরাস্ত করতে পারবেন।’’

এই পোস্টটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ ...
© All rights Reserved © 2020
Developed By Engineerbd.net
Engineerbd-Jowfhowo
Translate »