৩০শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ রাত ১০:২৬

৫০জুতাপেটা ও ৩০ হাজার টাকার বিনিময় বিক্রি কিশোরীর ইজ্জত!

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইমঃ মঙ্গলবার, জানুয়ারি ১৫, ২০১৯,
  • 256 সংবাদটি পঠিক হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বরিশাল সদর উপজেলার শায়েস্তাবাদ ইউনিয়নের দক্ষিণ পানবাড়ি গ্রামে ১৪ বছরের এক কিশোরীকে ধর্ষণের শাস্তি ৫০টি জুতাপেটা ও ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয় এক সালিশ বৈঠকের মাধ্যমে। জানা যায়, সোমবার (১৪ জানুয়ারি) বিকালে ধর্ষক ওমরকে এ শাস্তি দেওয়া হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সাবেক ইউপি সদস্য জসিম খান, চুন্নু হাওলাদার, আবুল খান, শাহজাহান খান, ওমর সরদার, শফিউদ্দীন হাওলাদারসহ স্থানীয় ব্যক্তিরা। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, গত ৮ জানুয়ারি ওমর ওই কিশোরীকে জানায় তার বিয়ের জন্য ছেলে দেখেছে। ওই ছেলে তার ঘরে বসা আছে। এরপর কিশোরীকে নিজ ঘরে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করে ওমর। পরে বিষয়টি জানাজানি হলে কিশোরীর বাড়িতে শালিস বৈঠক ডাকা হয়। বৈঠকে ওমরের দ্বিতীয় স্ত্রী শিউল আক্তার স্বামীর বিরুদ্ধে স্বাক্ষ্য দেয়। এরপর ওমরকে ৫০টি জুতাপেটা ও ৩০ হাজার টাকা জরিমানা নির্ধারণ করে সালিশদাররা। কিশোরীর পরিবারের দাবি, তারা মামলা করতে চাইলেও শালিসদারদের ভয়ে থানায় যেতে পারছেন না। ওমর ও তার পরিবারের লোকজন মামলা না করতে নানা ধরনের হুমকি দিচ্ছে। তারা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। সাবেক ইউপি সদস্য জসিম খান বলেন, মেয়েটির পরিবার গরিব। তারা আইনি প্রক্রিয়ায় যেতে পারছিল না। এজন্য আমরা সালিশ বৈঠক বসিয়ে একটি বিচার করেছি। বরিশাল মেট্রোপলিটন কাউনিয়া থানার ওসি আনোয়ার হোসেন বলেন, আমাদের কাছে লিখিত কিংবা মৌখিক কোনও অভিযোগ না আসায় কিছুই জানি না। তদন্ত করে ধর্ষকের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন ওসি।

এই পোস্টটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ ...
© All rights Reserved © 2020
Developed By Engineerbd.net
Engineerbd-Jowfhowo
Translate »