১লা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ সকাল ১১:২৪
ব্রেকিং নিউজঃ
বিমানবন্দরে সাফজয়ী কৃষ্ণা রানীর আড়াই লাখ টাকা চুরি ভারতের নতুন হাইকমিশনার প্রণয় কুমার ভার্মা ঢাকায় কপাল পুড়বে ১৪০ এমপির প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফরে সঙ্গী হলেন যারা কিশোরগঞ্জ ও নরসিংদীতে হিন্দুদের বাড়ি-ঘর ও দোকানপাটে হামলা, ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ। রাঙ্গামাটিতে সুভাষ দাস ও মনি দাস দম্পতিকে গাছের সাথে বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় অমানবিক নির্যাতন ড্রাইভিং লাইসেন্সের লিখিত পরীক্ষার স্ট্যান্ডার্ড ৮৫টি প্রশ্ন ব্যাংক ও উত্তর নিজে শিখুন এবং অন্যকে শেখার জন্য উৎসাহিত করুন। আবার ভুমিদস্যুর হাতে আহত সংখ্যালঘু হিন্দু… বাংলাদেশেও অর্থপাচারের অভিযোগ পার্থের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ-পাকিস্তানের সম্পর্ক উন্নয়নে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রশ্নবিদ্ধ ভূমিকা

বরিশালের আগৈলঝাড়ার বাগধা ইউপি সদস্য কালাম বাহানীর হামালায় আহত নারায়ন চন্দ্র বিশ্বাস ।

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইমঃ বুধবার, জানুয়ারি ২৩, ২০১৯,
  • 218 সংবাদটি পঠিক হয়েছে


বরিশাল আগৈলঝাড়া বাগধা ইউনিয়ন আস্কর গ্রামে র উপজেলার বাগধা ইউনিয়নের চক্রিবাড়ি খালের মাছ বিক্রির টাকা প্রতিবছর আস্কর পুরাতন কালীবাড়ি হরিমন্দিরে দেয়া হত। অথবা ধর্মিও অনুষ্টানে খরচ করা হয়,এটা যুগ যুগ ধরে এভাবে চলে আসছে কারন এটা হিন্দু অদ্যাসিত গ্রাম, অথচ এবছর হঠাৎ করে পার্শবতি গ্রামের ইউপি সদস্য ৭ নং ওয়াডের মেম্বার,, কালাম হাওলাদার, খাল বিক্রি করে চক্রিবাড়ি গ্রামে জামে মসজিদে টাকা খরচ করার কথা বলে টাকা হাতিয়ে নেবার চেষ্টা শুরু করে অতপর আস্কর গ্রামের মন্দির কমিটির সদস্য ও যুবলীগ নেতা নারায়ন চন্দ্র বিশ্বাস, কালাম হাওলাদারের সাথে এইনিয়ে তর্কে জড়িয়ে পরলে অতপর কিছু সময় পর কালাম হাওলাদারের ফোন করায় সাথে,সাথে ৮,১০ জন গুন্ডা পান্ডা এসে নারায়ন চন্দ্র  বিশ্বাসের উপর হামলা শুরু করে ও হিন্দু সম্পোদায় নিয়ে গালাগালি দেয়,এই গ্রাম ছেড়ে ভারতে চলে যাবার হুমকি দেয় পরে রক্তাক্ত অবস্থায় নারায়ন বিশ্বাস কে প্রাথমিক চিকিৎসা পরে বরিশাল মেডিকেলে ভর্তি করা হয়,বিভিন্ন উপায়ে চলছে হিন্দু নির্যাতন, ঘটনাটি বরিশাল জেলার আগৈলঝাড়া থানার আস্কর গ্রামে, আস্কর গ্রামের ভিতর দিয়া বয়ে চলা খাল এতদিন ব্যাবরিত হয়েছে আস্করের বিভিন্ন ধমীয় ও সামাজিক কর্মে, হঠাৎ করে এটি দাবি করে পার্শবর্তী গ্রামের (চকরিবারি)ইউপি মেম্বার কালাম মেম্বার (যিনি কিছুদিন আগে গম চুরি করে ধরা খেয়ে মামলা খেয়েছে) নারায়ণের চিৎকার শুনে লোকজন ছুটে আসলে অবস্থা খারাপ দেখে মেম্বার ভয়ে পালিয়ে যায় এবং নারায়ণ কে ফাঁসাতে উল্টো মেম্বার কে নারায়ণ ও স্থানীয় লোকজন মেরেছে এই কথা প্রচার করে মেম্বার নিজে হাসপাতালে ভর্তি হয়ে,অন্যদিকে এমনও অবস্থায় কালাম হাওলাদার নাটক শুরু করে দেয় কারন হিন্দুদের মাঝে খোপের সৃস্টি দেখে পরদিন ঢাকা কোন এক হাসপাতালে ভর্ত হয় ও স্থানিও হিন্দুদের ৭,৮ জনের নামে মিথ্যা মামলা দেয়,এমনও অবস্থায় হিন্দুদের মাঝে ভয়ের সৃষ্টি হয়েছে তারা এখন ঘর থেকে বের হতে ভয় পায়,বর্তমানে ওই হিন্দু গ্রামে দুঃখ ও খোপের সৃষ্টি বিরাজ করছে,,,



এই পোস্টটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ ...
© All rights Reserved © 2020
Developed By Engineerbd.net
Engineerbd-Jowfhowo
Translate »